নোয়াখালী প্রতিনিধি:

নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার মেঘনা নদীতে মাছ ধরার একটি ট্রলার ডুবির ঘটনা ঘটেছে। ঘটনার পর থেকে এ পর্যন্ত নববধূ ও শিশুসহ সাতজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। নিখোঁজ বাকিদের উদ্ধারে তৎপরতা অব‌্যাহত রেখেছে নৌ পুলিশ।

মঙ্গলবার (১৫ ডিসেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে হাতিয়া উপজেলার চানন্দী ঘাট থেকে আনুমানিক ৮০-৮৫ জন যাত্রী নিয়ে ঢালের চরের উদ্দেশে রওনা হয় ট্রলারটি। পথে কেরিংচর এলাকায় মেঘনা নদীতে ডুবে যায় সেটি।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, তীব্র স্রোতের কারণে ট্রলারটি ডুবে যায়। অনেকে সাঁতরে নদীর পাড়ে উঠেছেন। এখনও কতজন নিখোঁজ আছেন তার সঠিক সংখ‌্যা জানাতে পারেননি তারা।

হাতিয়ার মোর্শেদ বাজার তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক আবুল হোসেন জানিয়েছেন, তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের পরিচয় জানা যায়নি। দুর্ঘটনার শিকার হওয়া যাত্রীদের অনেকে নদীর পাড়ে উঠেছেন। এ দুর্ঘটনায় এখন পর্যন্ত কতজন মারা গেছেন বা নিখোঁজ আছেন তা নিশ্চিত করে জানাতে পারেনি পুলিশের এ কর্মকর্তা।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *