নিজস্ব প্রতিবেদক:

রাজধানীসহ সারাদেশে বেড়েছে শীতের প্রকোপ।সারা দিনেও মিলছেনা সূর্যেরও দেখা।এ অবস্থা চলবে আগামী দুদিন। এরই মধ্যেই রবিবার থেকে দেশে শুরু হবে শৈত্যপ্রবাহ। কমে যাবে রাতের তাপমাত্রাও। আর মাসের শেষ দিকে আরও একটি শৈত্যপ্রবাহের সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানাচ্ছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আজ শুক্রবার (১১ ডিসেম্বর) আবহাওয়া অধিদপ্তরের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে,আগামী সপ্তাহে অর্থাৎ ১৭-১৮ ডিসেম্বর থেকে সারাদেশে শৈত্যপ্রবাহ শুরু হতে পারে। তা স্থায়ী হতে পারে সপ্তাহখানেক।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে,মৌসুমি লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। এর বর্ধিতাংশ উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। উপমহাদেশীয় উচ্চ চাপবলয়ের বর্ধিতাংশ ভারতের বিহার ও এর আশপাশের এলাকা পর্যন্ত ছড়িয়েছে। এর প্রভাবে অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলাসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। মধ্যরাত থেকে দুপুর পর্যন্ত দেশের কোথাও কোথাও নদী অববাহিকায় মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা এবং দেশের অন্য এলাকায় মাঝারি থেকে হালকা কুয়াশা পড়তে পারে।

আবহাওয়াবিদ ওমর ফারুক বলেছেন, ‘১৭ বা ১৮ ডিসেম্বর থেকে তাপমাত্রা আরও কমবে। ওই সময় সপ্তাহখানেক দেশের ওপর দিয়ে শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। দিন ও রাতের তাপমাত্রার পার্থক্য কমেছে।’

আজ দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা চট্টগ্রাম বিভাগের সীতাকুণ্ডে ১৪ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। ঢাকার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ময়মনসিংহে ১৫ দশমিক ৬, চট্টগ্রামে ১৭ দশমিক ৪, সিলেটে ১৬ দশমিক ৪, রাজশাহীতে ১৬, রংপুরে ১৬ দশমিক ৩, খুলনায় ১৬ এবং বরিশালে ১৬ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *