বিয়ানীবাজার,(সিলেট)প্রতিনিধি:

পারিবারিক কলহের জের ধরে গত বৃহস্পতিবার রাতে ফাতেমা বেগমকে(২৭) তার বাবার বাড়ির শয়নকক্ষে শ্বসরোধ করে হত্যা করে পরে মৃত্যু নিশ্চিত করতে জবাই করে রক্তাক্ত লাশ ঘরের মেঝেতে রেখে পালিয়ে যায় স্বামী মরম আলী (৩০)।

হত্যাকাণ্ডের পর থেকে পুলিশের পাশাপাশি আসামিকে গ্রেফতারে ছায়া তদন্ত ও অভিযান শুরু করে র‍্যাব-৯ এর একটি দল। শনিবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে র‍্যাব-৯ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল আবু মুসা মো. শরিফুল ইসলামের নেতৃত্বে র‍্যাবের একটি বিশেষ দল অভিযান চালিয়ে বিয়ানীবাজার উপজেলার সীমান্ত এলাকা থেকে মরম আলীকে গ্রেফতার করে।

শনিবার দিনগত রাতে র‌্যাব-৯ এর মিডিয়া অফিসার এএসপি ওবাইন স্বাক্ষরিত গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এর আগে শুক্রবার সকালে কানাইঘাটের লক্ষ্মীপ্রসাদ পশ্চিম ইউপির কালিনগর আগফৌদ গ্রামে নিজ ঘর থেকে গলাকটা অবস্থায় ফাতেমা বেগমের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় শুক্রবার রাতে কানাইঘাট থানায় মরম আলীকে আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করেন নিহতের মা কালিনগর আগফৌদ গ্রামের আব্দুল খালিকের স্ত্রী জলিকা বেগম। মামলায় মরম আলীর নাম উল্লেখ করে আরও ৩/৪ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *