মেহেরপুর প্রতিনিধি:

মেহেরপুর সদর উপজেলার মনোহরপুরে পারিবারিক কলহে স্ত্রীর গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। নিহত গৃহবধূর নাম রুবিনা খাতুন (২৩) তার স্বামীর নাম মিলন হোসেন।

আজ শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) সকাল ৮টার পর মেহেরপুর ২৫০ শয‌্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

গূহবধূটির পরিবার সূত্র জানায়, আজ ভোরে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে স্বামী মিলন হোসেন ক্ষিপ্ত হয়ে তার স্ত্রীর গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়।

পরে বাড়ির লোকেরা ও প্রতিবেশিরা তাকে উদ্ধার করে মেহেরপুর ২৫০ শয‌্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসার কিছুক্ষণ পর তার মৃত্যু হয়।

এদিকে মেহেরপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ দারা খান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

প্রতক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে ওসি জানান, মেহেরপুর সদর উপজেলার মনোহরপুর গ্রামের হাতেম আলীর ছেলে এনজিও কর্মী মিলন হোসেন প্রায় ৭ বছর আগে একই উপজেলার টেংগার মাঠ শিশিরপাড়া গ্রামের রুবিনাকে বিয়ে করেন। সংসার জীবনে তাদের ৪ বছরের এক মেয়ে রয়েছে। তারা থাকতেন গাংনী উপজেলার বামুন্দী গ্রামে।

সম্প্রতি স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দ্বন্দ্ব লেগেই থাকত। আজ ভোরে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে মিলন হোসেন ক্ষিপ্ত হয়ে রুবিনা খাতুনের গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয়। রুবিনার চিৎকারে প্রতিবেশিরা ছুটে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে মেহেরপুর ২৫০ শয‌্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে পাঠান। চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ সকালে তার মৃত্যু হয়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *