অনলাইন ডেস্ক:

কোভিড-১৯ মহামারি আক্রান্ত পৃথিবীতে ব্যবসা-বাণিজ্যের করুণ অবস্থা। তবে অর্থনৈতিক দুরবস্থার মধ্যেও ২০২০ সালে বাংলাদেশের বৈদেশিক আয় ৮% পর্যন্ত বাড়বে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

গত ২৯ অক্টোবর প্রকাশিত বিশ্ব ব্যাংকের অভিবাসন ও উন্নয়ন প্রতিবেদনে এই সম্ভাবনার কথা উল্লেখ করা হয়।

তাদের হিসেব অনুযায়ী, এবছর প্রবাসীদের পাঠানো বৈদেশিক মুদ্রার পরিমাণ হবে প্রায় ১৯ দশমিক ৮ বিলিয়ন ডলার বা বাংলাদেশি মুদ্রায় ১ লাখ ৭০ হাজার কোটি টাকা।

গত বছর প্রবাসীদের পাঠানো বৈদেশিক মুদ্রার পরিমাণ ছিল ১৮ দশমিক ৩৫ বিলিয়ন ডলার বা ১ লাখ ৫৫ হাজার কোটি টাকা।

শুধু তাই নয়, এবছর সর্বোচ্চ পরিমাণে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনকারী বিশ্বের সেরা দশ দেশের তালিকায় বাংলাদেশ অবস্থান করে নেবে- এমন সম্ভাবনার কথাও বলা হচ্ছে প্রতিবেদনে। এই তালিকায় প্রথম অবস্থানে আছে ভারত (৭৪ বিলিয়ন ডলার), দ্বিতীয় অবস্থানে আছে চীন (৬০ বিলিয়ন ডলার) এবং তৃতীয় অবস্থানে আছে মেক্সিকো (৪১ বিলিয়ন ডলার)।

প্রতিবেদনের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ২০২০ সালে বাংলাদেশের জিডিপিতে বৈদেশিক মুদ্রার হার হবে ৬.২%।

অন্যদিকে ইউরোপ ও মধ্য এশিয়ায় বৈদেশিক মুদ্রার প্রবাহ ১৬% পর্যন্ত কমবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে, যার পরিমাণ প্রায় ৪৮ বিলিয়ন ডলার।

এবছর ভারতের বৈদেশিক মুদ্রার প্রবাহ ৯% পর্যন্ত কমবে। আর পাকিস্তানের ক্ষেত্রে বৈদেশিক মুদ্রার প্রবাহ বাড়বে ৯% বা ২৪ দশমিক ১ বিলিয়ন ডলার।

সূত্র:-দ্যা বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *