অনলাইন ডেস্ক:

সাময়িক ভাবে স্থগিত হয়ে গেল জনসন অ্যান্ড জনসনের করোনা টিকা ট্রায়াল। সম্ভাব্য টিকা নেওয়ার পর একজন স্বেচ্ছাসেবক অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। তাই কোনও ঝুঁকি না নিয়ে আপাতত টিকা স্থগিত করল প্রতিষ্ঠানটি।

তবে আপাতত সাময়িক ভাবে সমস্ত ক্লিনিকাল ট্রায়াল স্থগিত রাখা হয়েছে। এদিকে একজন স্বেচ্ছাসেবক অসুস্থ হয়ে পড়ায় ‘Ensemble’ নামের টিকার ট্রায়ালটিও তৃতীয় ধাপে এসে স্থগিত। তার কারণ এখনও নির্ধারিত হয়নি।

প্রায় ৬০ হাজার স্বেচ্ছাসেবকের ওপর করোনা টিকার পরীক্ষা করছে জনসন অ্যান্ড জনসন। তবে ক্লিনিকাল ট্রায়ালের জন্য নতুন করে কোনও সেচ্ছাসেবককে নথিভুক্ত করা হচ্ছে না।

জনসন অ্যান্ড জনসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এরকম গুরুতর প্রতিক্রিয়া বা serious adverse events (SAEs) খুবই স্বাভাবিক, বিশেষত অনেক সংখ্যক স্বেচ্ছাসেবীদের মধ্যে টিকার পরীক্ষা করলে। প্রতিষ্ঠানটির নীতিমালা অনুযায়ী এবার দেখা হবে ওই বিশেষ টিকা থেকেই অংশগ্রহণকারী অসুস্থ হয়েছেন কিনা সেই অনুযায়ী ঠিক করা হবে ট্রায়াল চলবে কি না।

করোনা টিকার খোঁজে আমেরিকা, আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল, চিলি, কলম্বিয়া, মেক্সিকো, পেরু ও দক্ষিণ আফ্রিকায় চলছে এই তৃতীয় ধাপের ক্লিনিকাল ট্রায়াল। তারমধ্যেই এরকম বড় ধাক্কা খেল প্রতিষ্ঠানটির গবেষণা।

সূত্র;-টিবিএস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *