মাহমুদুর রহমান তুরান, ভাঙ্গা (ফরিদপুর):

ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলায় লকডাউনের সময় স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারি নির্দেশনা অমান্য করার অপরাধে ২৭ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়েছে।

আজ শনিবার বেলা ১১টা থেকে ২টা পর্যন্ত ভ্রাম্যমাণ আদালতের এক অভিযানে এই জরিমানা করা হয়।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন ভাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আজিম উদ্দিন। উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ যৌথভাবে এ অভিযান পরিচালনা করেন।

ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা গেছে, করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে সরকারঘোষিত লকডাউন চলছে। অনেকেই লকডাউন মানছেন না। স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারি নির্দেশনা অমান্য করছেন। লকডাউন কার্যকর করতে ভাঙ্গা শহরের থানা এলাকায়, পৌর বাজার, স্বর্নকার পট্টি, ঔষধের দোকানে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান পরিচালনা করে ।

অভিযানে স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারি নির্দেশনা অমান্য করায় ২৭ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে ৪৩ হাজার ৩০০ টাকা জরিমানা করা হয়।

অভিযানে অংশ নেন ভাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. লুৎফর রহমান, সেকেন্ড অফিসার মো: ফরিদ আহমেদ, উপপরিদর্শক (এসআই) সৈয়াদুর রহমান প্রমুখ।

ইউএনও মো. আজিম উদ্দিন বলেন, ‘করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে বিধিনিষেধ কার্যকর করতে উপজেলার বিভিন্ন বাজারে অভিযান চালানো হয়। উপজেলার চার প্রান্তে পুলিশের চারটি চেকপোস্ট স্থাপন করা হয়েছে।

বিধিনিষেধ মানতে মানুষকে আমরা উদ্বুদ্ধ করেছি। যাঁরা বিধিনিষেধ মানেনি, তাঁদের ভ্রাম্যমাণ আদালতের আওতায় এনেছি। এ সময় জনসাধারণকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার অনুরোধ করেছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *