মাহমুদুর রহমান(তুরান)ভাঙ্গা(ফরিদপুর) :

ফরিদপুরের ভাঙ্গায় রনাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্বা ও কেন্দ্রীয় কৃষকলীগ নেতা এম,এ ওয়াদুদ,সাবেক মুক্তিযোদ্বা কমান্ডার আঃ আজিজ টুকু মোল্লাসহ অন্যান্য মুক্তিযোদ্বাদের সম্পর্কে কুরুচিপূর্ন ও আপত্তিকর অপপ্রচারের বিরুদ্বে সংবাদ সম্মেলন করেছে উপজেলার বিক্ষুব্ধ মুক্তিযোদ্বারা।

সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার থানা রোড সংলগ্ন চিংড়ি রেষ্টুরেন্টে অনুষ্ঠিত সংবাদ সমে¥লনে মুক্তিযোদ্বাগন অবিলম্বে কুৎসা রটনাকারী মাহবুব হোসেন মোতালেবের বিরুদ্বে ভুয়া মুক্তিযোদ্বা সেজে তার অপকর্মের জন্য
শাস্তি দাবী করেন।

এ সময় বক্তব্য রাখেন উপজেলা মুক্তিযোদ্বা কমান্ডার আবুল বাশার মাতুব্বর,এম এ ওয়াদুদ,সাবেক এ.এসপি ইমারত হোসেন,সাবেক ওসি গিয়াস উদ্দিন আরজু,হাসমত আলী,আঃ রাজ্জাক.মজিবুর রহমান,মাহবুব মাতুব্বর,মোতালেব মাতুব্বর প্রমুখ।

সাবেক এ,এসপি ইমারত হোসেনের সঞ্চালনায় এক লিখিত বক্তব্যে মুক্তিযোদ্বা এম.এ ওয়াদুদ বলেন, কথিত মুক্তিযোদ্বা মাহবুব হোসেন মোতালেব মুক্তিযোদ্বা ভবনটি নানা অপকর্মের মাধ্যমে কলুষিত করে ফেলেছে। তার অপকর্মের মাধ্যমে বিএনপি জামাতের লোকজন এমনটি চিহ্নিত রাজাকাররাও মুক্তিযোদ্বা হয়ে ভাতা গ্রহন করছে।

তাছাড়া তিনি(মোতালেব হোসেন মোতালেব) নিজে একটি সরকারী বাড়ী বরাদ্ব নেন এবং তার পরিবারের নামে নিজেকে মৃত দেখিয়ে আরও দুটি বাড়ী বরাদ্বের আবেদন করেন। উপস্থিত মুক্তিযোদ্বারা তাদের বক্তব্যে মোতালেব হোসেনের বিরুদ্বে নারী কেলেংকারীরও অভিযোগ আনেন।

উল্লেখ্য যে,সম্প্রতি ভাঙ্গা উপজেলা অনলাইন প্রেসক্লাবে আয়োজিত একটি সংবাদ সম্মেলনে মাহবুব হোসেন মোতালেব মুক্তিযোদ্বা এম.এ ওয়াদুদ,ইমারত হোসেনসহ বেশ কয়েকজন মুত্তিযোদ্বাকে নিয়ে নানা আপত্তিকর মন্তব্য করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *