অনলাইন ডেস্ক:

কোনোভাবেই নভেল করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর মিছিল ঠেকানো যাচ্ছে না। বিশ্বজুড়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৭ হাজারের বেশি মানুষের প্রাণ কেড়েছে ভাইরাসটি। একই সময়ে নতুন করে আড়াই লক্ষাধিক মানুষের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে এই বৈশ্বিক মহামারীতে মৃতের সংখ্যা ৭ লাখ ৪ হাজার ছাড়িয়েছে। সরকারি হিসেবে, মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ৮৭ লাখ ছুঁইছুঁই।

পরিসংখ্যানভিত্তিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটার’র তথ্য মতে, আজ ৫ আগস্ট, বুধবার সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত সারা পৃথিবীতে করোনায় আক্রান্ত বেড়ে ১ কোটি ৮৬ লাখ ৯৯ হাজার ৪৩২ জনে দাঁড়িয়েছে। এদের মধ্যে ৭ লাখ ৪ হাজার ৩২৪ জন ইতোমধ্যে মৃত্যুবরণ করেছেন। বিপরীতে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১ কোটি ১৯ লাখ ১৪ হাজার ৭৮৮ জন। বর্তমানে চিকিৎসাধীন আছেন ৬০ লাখ ৮০ হাজার ৩২০ জন করোনারোগী, যাদের মধ্যে ৬৫ হাজার ৪৭৭ জনের অবস্থা গুরুতর।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে পৃথিবীর সর্বোচ্চ ৪৯ লাখ ১৮ হাজার ৪২০ জনের শরীরে এখন পর্যন্ত কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। লাতিন আমেরিকার বৃহত্তম দেশ ব্রাজিলে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৮ লাখ ৮ হাজার ৭৬ জনের শরীরে শনাক্ত হয়েছে ভাইরাসটি। এছাড়া ভারতে তৃতীয় সর্বোচ্চ ১৯ লাখ ৬ হাজার ৬১৩ জনের শরীরে ভাইরাসটি শনাক্ত হয়েছে। আর রাশিয়ায় ৮ লাখ ৬১ হাজার ৪২৩ জন (চতুর্থ) ও দক্ষিণ আফ্রিকায় ৫ লাখ ২১ হাজার ৩১৮ জনের (পঞ্চম) শরীরে ভাইরাসটি শনাক্ত হয়েছে।

শীর্ষ দশে থাকা অন্য দেশগুলো হলো – মেক্সিকো (৪ লাখ ৪৯ হাজার ৯৬১ জন), পেরু (৪ লাখ ৩৯ হাজার ৮৯০ জন), চিলি (৩ লাখ ৬২ হাজার ৯৬২ জন), স্পেন (৩ লাখ ৪৯ হাজার ৮৯৪ জন) ও কলম্বিয়া (৩ লাখ ৩৪ হাজার ৯৭৯ জন)।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চসংখ্যক মানুষ কোভিড-১৯ মহামারীতে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। দেশটিতে মোট ১ লাখ ৬০ হাজার ২৯০ জন মারা গেছেন। ব্রাজিলে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৯৬ হাজার ৯৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। মেক্সিকোতে তৃতীয় সর্বোচ্চ ৪৮ হাজার ৮৬৯ জন মারা গেছেন। এছাড়া যুক্তরাজ্যে চতুর্থ সর্বোচ্চ ৪৬ হাজার ২৯৯ জন ও ভারতে পঞ্চম সর্বোচ্চ ৩৯ হাজার ৮২০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এ হিসেবে শীর্ষ দশে রয়েছে – ইতালি (মৃত্যু ৩৫ হাজার ১৭১ জন), ফ্রান্স (মৃত্যু ৩০ হাজার ২৯৬ জন), স্পেন (মৃত্যু ২৮ হাজার ৪৯৮ জন), পেরু (মৃত্যু ২০ হাজার ৭ জন) ও ইরান (মৃত্যু ১৭ হাজার ৬১৭ জন)।

এছাড়া রাশিয়ায় ১৪ হাজার ৩৫১ জন, কলম্বিয়ায় ১১ হাজার ৩১৫ জন, বেলজিয়ামে ৯ হাজার ৮৫০ জন, চিলিতে ৯ হাজার ৭৪৫ জন, জার্মানিতে ৯ হাজার ২৩২ জন, কানাডায় ৮ হাজার ৯৫৮ জন, দক্ষিণ আফ্রিকায় ৮ হাজার ৮৮৪ জন, নেদারল্যান্ডসে ৬ হাজার ১৫০ জন, পাকিস্তানে ৫ হাজার ৯৯৯ জন, ইকুয়েডরে ৫ হাজার ৮০৮ জন, সুইডেনে ৫ হাজার ৭৪৭ জন, তুরস্কে ৫ হাজার ৭৬৫ জন, ইন্দোনেশিয়ায় ৫ হাজার ৩৮৮ জন, ইরাকে ৫ হাজার ১৭ জন, মিসরে ৪ হাজার ৯১২ জন, চীনে ৪ হাজার ৬৩৪ জন, আর্জেন্টিনায় ৩ হাজার ৯৭৯ জন, বলিভিয়ায় ৩ হাজার ৩২০ জন, বাংলাদেশে ৩ হাজার ২৩৪ জন, সৌদি আরবে ২ হাজার ৯৮৪ জন, রোমানিয়ায় ২ হাজার ৪৮০ জন ও ফিলিপাইনে ২ হাজার ১১৫ জনের প্রাণ কেড়েছে কোভিড-১৯ মহামারী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *