অনলাইন ডেস্ক:

তাপপ্রবাহ ক্রমান্বয়ে বাড়ার ফলে বঙ্গোপসাগর গরম হয়ে লঘুচাপ সৃষ্টির আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। এর কিছু অংশ উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত।

সোমবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা ও ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি ও বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সারাদেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, সোমবার (১৭ মে) সবচেয়ে বেশি তাপমাত্রা ছিল যশোরে ৩৯ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিন দেশে সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত হয়েছে টাঙ্গাইলে, ৩০ মিলিমিটার। ক্রমান্বয়ে তাপমাত্রা আরো বাড়ার আভাস রয়েছে। বঙ্গোপসাগরের পৃষ্ঠদেশ উত্তপ্ত হয়ে ওঠায় চলতি সপ্তাহের শেষের দিকে লঘুচাপ সৃষ্টির আভাস রয়েছে।

লঘুচাপ আরো ঘণীভূত হয়ে প্রথমে নিম্নচাপ, পরে আরও শক্তি সঞ্চয় করে ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নেয়। আরব সাগরে ইতোমধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড় সৃষ্টি হয়ে গুজরাট উপকূল লণ্ডভণ্ড করে দিয়েছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তর দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসে জানিয়েছে, চলতি মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে। যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে।

আবহাওয়াবিদ মো. আব্দুর রহমান খান জানান, আগামী পাঁচদিনের শেষের দিকে বঙ্গোপসাগরে একটি লঘুচাপ সৃষ্টির আশঙ্কা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *