নিজস্ব প্রতিবেদক:

পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে বিক্ষোভ করেছেন ভাস্কর্যবিরোধীরা। শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) দুপুরে জুমার নামাজ শেষে বিক্ষোভ করেন তারা। পরে নিষেধ করার পরও বিক্ষোভকারীরা জমায়েত হওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ লাঠিচার্জ করে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

নামাজের পর মোনাজাত শেষ হলে বিক্ষোভকারীরা বায়তুল মোকাররমের উত্তর গেটের সিঁড়িতে অবস্থান নিয়ে স্লোগান দিতে শুরু করে। এ সময় ‘লড়াই লড়াই লড়াই চাই, লড়াই করে বাঁচতে চাই’, ‘দুনিয়ার মুসলিম এক হও’ স্লোগান দেন তারা। এ সময় পুলিশ তাদের চলে যেতে বলে। প্রায় আধা ঘণ্টা স্লোগান দেয়ার পর সিঁড়ি থেকে নেমে যান বিক্ষোভকারীরা।

পরে দুপুর ২টার দিকে উত্তর গেট দিয়ে বের হয়ে তারা বিজয়নগরের দিকে আসেন। এ সময় বিক্ষোভকারীরা জমায়েত হওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ লাঠিচার্জ করে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এতে কয়েকজন একজন আহত হয়েছে। এছাড়া একজনকে আটক করা হয়েছে বলে জানা গেছে। তবে আটকের বিষয়টি পুলিশ স্বীকার করেনি।

পুলিশের মতিঝিল জোনের এডিসি এনামুল হক মিঠু সাংবাদিকদের বলেন, ‘অনুমতি ব্যতীত যেকোনো সভা সমাবেশ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। তারপরও নামাজের পর কিছু লোক বিক্ষোভের জন্য দাঁড়িয়ে যায়। আমরা তাদের সরে যেতে বলেছি। পরবর্তীতে শাহবাগ মোড়ের দিকে যাওয়ার চেষ্টা করলে আমরা তাদের ছত্রভঙ্গ করে দিই। তারা ব্যারিকেড ভেঙে শাহবাগ যাওয়ার চেষ্টা করেছিল। তারা কারা সেটা এখনই বলা যাচ্ছে না। কারণ তারা কোনো ব্যানার নিয়ে আসেনি।’

আটকের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি এই মুহূর্তে কিছু বলতে চাননি।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *