ঢামেক,প্রতিবেদক:

রাজধানীর হাজারীবাগে বাবা-মায়ের ঝগড়ার বলি হয়ে প্রান হারালেন মেয়ে রোজা (৬) ছেলে রিজন (১৩) রয়েছেন আশঙ্কাজনক অবস্থায়। ঢামেক হাসপাতালে আজ বুধবার গুরুতর জখম ৩ রোগীর সাথে আসা এক প্রতিবেশি জানিয়েছেন,  নিজের ছেলে ও মেয়েকে গলা কেটে খুন করার চেষ্টার পর বাবা নিজেও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন।

গুরুতর আহত তিনজনকে ঢামেক হাসপাতালে আনার পর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসকরা মেয়ে রোজাকে মৃত ঘোষণা করেন।ছেলে ও বাবা চিকিৎসাধীন, তাদের অবস্থাও আশঙ্কাজনক।

আহতদের নিয়ে আসা চাচা মেহেদী হাসান জানালেন,স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়েছিল। স্ত্রী বাসা থেকে বের হয়ে যান। পরে স্বামী এ ঘটনাটি ঘটিয়েছে বলে তার ধারণা। স্ত্রী রিমার গলার বাম পাশেও আঘাতের চিহ্ন দেখা গেছে।

নিহত শিশুর নাম জারিন হাসান রোজা (৬)। তার ভাই রিজন (১৩)। সে নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী। বাবা মো. জাবেদ হাসান (৪৮) পেশায় ব্যবসায়ী। হাজারীবাগ বোরহানপুর বটতলা ১০ নম্বর গলিতে বাসার নিচে মোবাইল  ও কসমেটিকসের দুটি দোকান রয়েছে তার।

ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পরিদর্শক মো. বাচ্চু মিয়া জানান, নিহত শিশু রোজার মরদেহ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *