আবুল কালাম,পঞ্চগড়:

এখন থেকে ফকির দাওয়াত কুল ও দোয়া কালামের জন্য ফকিরের প্রয়োজন হলে যোগাযোগ করুন। মো: গেয়াস উদ্দীন ফকির (ইউনিয়ন ফকির সভাপতি ৭নং দেবনগড়) জেলার তেতুলিয়া উপজেলার দেবনগড় এলাকার হাঁট-বাজার ও পথে-ঘাঁটে গাছের গায়ে সাঁটানো ডিজিটাল পেষ্টুনে সোভা পাচ্ছে উল্লেখিত শব্দ গুলো।পেষ্টুনের নিছের অংশে ফকির গেয়াস উদ্দিন নিজের মোবাইল নাম্বার ও যোগাযোগের ঠিকানাও উল্লেখ করেছেন।

এমন আজব প্রচারণা এলাকার মানুষদের মাঝে বেশ কৌতুহল সৃষ্টি হয়েছে অনেকেই ফকির গিয়াসের মোবাইল নাম্বারে ফোন দিয়ে নিশ্চিতও হয়ে নিচ্ছেন। ঘটনার নজর পড়েছে টিনেজারদেরও তাই তারা পেষ্টুনের ছবিটি তুলে বিভিন্ন শিরোনামে ফেসবুকে পোষ্টও করেছেন।

বেশ কিছুদিন ধরে পুরো জেলায় ঘটনাটি আলোচনার কেন্দ্র বিন্দুতে প্রতিয়মান হয়েছে।

গতকাল রাতে পোষ্টারে দেয়া মোবাইল নাম্বারে ফোন দিয়ে সাংবাদিক পরিচয় দেয়ার সাথে সাথে অপর প্রান্ত থেকে ফকির গেয়াস উদ্দিন বেশ উৎসাহ সহকারে জানান, ‘অনেক সময় অনেকেই আমাদের খোঁজ পায় না। যার কারণে দেবনগড় ইউনিয়নে আমরা প্রায় তিন মাস ধরে এই পোস্টারের ব্যবস্থা করেছি। এই পোস্টারের মাধ্যমে মোটামুটি ভালো সাড়া পাচ্ছি। যদি কারো ফকির দাওয়াত, কুল ও দোয়া কালাম হয়ে থাকে তারা আমাদের ফোন দেয়, তখন আমরা ২-৩ জন যাই। আমরা তাদের বাড়িতে গেলে সেখানে সারাদিন সময় দেওয়ায় লোক প্রতি ৩শ টাকা নিয়ে থাকি। তবে বড়লোক পরিবারের কারো দাওয়াত হয়ে থাকলে তারা ৫শ থেকে একটু বেশিই দিয়ে থাকে।

তার এ অভিনব প্রচারণার কথা জানতে চাইলে গেয়াস উদ্দীন জানান,আমার ইউনিয়রে সকল ফকিরদের সার্থে জায়গায় জায়গায় পোষ্টার দিয়েছি। মানুষ যেন সহজে আমাদের সাথে যোগাযোগ করে দাওয়াত বা অর্থ সাহায্য করতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *