কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি :

শোরগঞ্জের কটিয়াদীতে মাদকাসক্ত ছেলের হাতে নিহত হয়েছেন বাবা নিদান মিয়া। আজ শুক্রবার দিবাগত রাত ১টার দিকে পৌর এলাকার দড়ি চরিয়াকোনা এ খুনের ঘটনা ঘটে। আজ শনিবার সকালে পুলিশ অভিযুক্ত ছেলে হৃদয় মিয়াকে (২৬) আটক করেছে।

নিহত নিদান মিয়া (৫০) টমটম চালক ছিলেন।

কটিয়াদী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম শাহাদত হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, গতকাল রাতে কদমতলী বাজার থেকে বাড়ি ফিরছিলেন নিদান মিয়া। এ সময় বাড়ির কাছে ধানক্ষেতের আড়ালে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে ওৎপেতে থাকা ছেলে হৃদয় মিয়া তার বাবাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে পালিয়ে যান। এ সময় ধারালো অস্ত্রটি ধানক্ষেতে ফেলে রেখে যায়। নিদান মিয়া গোঙানির শব্দে আশপাশের লোকজন ছুটে গিয়ে মারাত্মক জখম অবস্থায় হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

নিদান মিয়ার ছোট ভাই রতন মিয়া বলেন, ‘মাদকের টাকার জন্য ঘাতক হৃদয় প্রায় সময়ই মা-বাবার কাছে মোটা অংকের টাকা দাবি করতেন। না দিলে জিনিসপত্র ভাঙচুর করতেন এবং মারধর করার ভয়ভীতি দেখাতেন।’

কটিয়াদী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম শাহাদত হোসেন জানান, সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। আটককৃত হৃদয় প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *