সিএনএস ডেস্ক:

নারায়ণগঞ্জের চাঁদমারী মাউরাপট্টি সেকশনমাঠ এলাকায় শুক্রবার রাতে অভিযান চালিয়ে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)-১১ এক অপহৃতকে উদ্ধার ও অপহরণের অভিযোগে কিশোর অপরাধী গ্রুপের ১১ সদস্যকে আটক করেছে।

আজ শনিবার ১০(অক্টোবর) র‌্যাব-১১ এর সিনিয়র এএসপি মো. সুমিনুর রহমানের স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, আটকদের জিজ্ঞাসাবাদ ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায় যে, তারা সবাই দুষ্কৃতিকারী ও কিশোর গ্যাং গ্রুপের সক্রিয় সদস্য। তারা দীর্ঘদিন ধরে রাস্তা ঘাটে পরিকল্পিতভাবে দলবদ্ধ হয়ে সংঘাত সৃষ্টি ও জনমনে ভয়ভীতি দেখিয়ে এলাকায় ত্রাস সৃষ্টি করে আসছিল।

আটককৃতরা হল- চাঁদমারী এলাকার মো. রাসেল মিয়া ওরফে রাসেল (১৮), মো. জালাল (১৮), মো. আমিনুল ইসলাম (২৩), মো. জনি ওরফে শফিকুল ইসলাম (১৮), মো. জাকির হোসেন ওরফে জাকির (১৮), মো. আনোয়ার (১৮), মো. জুয়েল রানা (২২), মো. আবু নাঈম (১৮), মো. ফেরদৌস ইসলাম (১৮), মো. আব্দুল্লাহ ওরফে শুভ (২৪) ও মো. সাইফুল ইসলাম ওরফে শান্ত (১৮)।

গত ৮ অক্টোবর ওই গ্যাংয়ের সদস্যরা এক কিশোরকে অপহরণ করে চাঁনমারী মাউরাপট্টি সেকশনমাঠ এলাকায় একটি পরিত্যক্ত ভবনে আটকে রাখে এবং মারধর করে তার কাছে থেকে নগদ ৩ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। পরবর্তীতে অপহৃতের মায়ের কাছ ফোন করে নগদ ৪০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। অপহৃতের মা ১০ হাজার টাকা দেয়ার কথা বললে অপহরণ কারিরা তাাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। নিরুপায় হয়ে অপহৃতের মা র‌্যাবের কাছে অভিযোগ করে।

অপহৃতের মায়ের অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১ ঘটনার সত্যতা পেয়ে গত শুক্রবার রাতে র‌্যাব-১১ এর বিশেষ একটি আভিযানিক দল অপহৃতকে উদ্ধার করে উক্ত কিশোর গ্যাং এর ১১ জন সক্রিয় সদস্যকে আটক করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *