নিজস্ব প্রতিবেদক:
অনলাইনে অর্ডার নিয়ে পণ্য না পাঠিয়ে প্রতারণা করার অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় রাজধানীর কলাবাগানের ইমরোজ কালেকশন নামের একটি প্রতিষ্ঠানকে আড়াই লাখ টাকা জরিমানা করেছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

রোববার (১৬ আগস্ট) অনুমোদন হীন ও মেয়াদোত্তীর্ণ কসমেটিকস ও ব্যবসায়িক লাইসেন্স মেয়াদোত্তীর্ণ হওয়াসহ বিভিন্ন অভিযোগের ভিত্তিতে ওই প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালানো হয়।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, অনলাইনে পণ্যের অর্ডার নেয়া হয়েছে। বিকাশের মাধ্যমে টাকাও পরিশোধ করা হয়েছে রাজধানীর কলাবাগানে অবস্থিত ইমরোজ কালেকশন নামের প্রতিষ্ঠানটিকে। কিন্তু প্রায় তিন মাস পার হয়ে গেলেও সাড়ে ৭ হাজার টাকার পণ্য হাতে পাননি বলে অভিযোগ চট্টগ্রামের ফজলে রাব্বির। বারবার যোগাযোগ করা হলে পণ্য না পাঠিয়েই প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে বলা হতো পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে। এই প্রতিষ্ঠান থেকে অনলাইনে পণ্য কিনে প্রতারণার শিকার হয়েছে দেশের বিভিন্ন জায়গার একাধিক ক্রেতা।

অভিযুক্ত ওই প্রতিষ্ঠানের অভিযানকালে ভুক্তভোগী রাব্বি জানান, ইমরোজ কালেকশনের পক্ষ থেকে চারবার অর্ডার দেয়া পণ্য কুড়িয়ার করার কথা বলা হয়েছে তাকে। তবে প্রতিষ্ঠানটি কোন স্লিপ দেখাতে পারেনি।

এ প্রসঙ্গে কলাবাগান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পরিতোষ চন্দ্র জানান, আজ (১৬ আগস্ট) কলাবাগান থানায় দুইজন ভুক্তভোগী আসেন। তাদের অভিযোগ, তারা অনলাইনে পণ্যের অর্ডার দিয়েছেন কিন্তু দীর্ঘদিনেও মালামাল তারা বুঝে পাননি। এরপর এই অভিযান চালানো হয় বলে জানান তিনি।

পরে ওই প্রতিষ্ঠানে ভ্রাম্যমান আদালত অভিযান চালিয়ে বেশ কিছু মেয়াদোত্তীর্ণ ও অনুমোদনহীন কসমেটিকস জব্দ করে। অভিযান পরিচালনাকারী ঢাকা মেট্রোপলিটনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সাইদুজ্জামান জানান, প্রতিষ্ঠানটিতে মেয়াদোর্ত্তীন অনেক পণ্য রয়েছে। আবার কিছু পণ্য আছে যেগুলোর বৈধ কাগজপত্র তারা দেখাতে পারেনি।

সবকিছু বিবেচনা করে এই প্রতিষ্ঠানের মালিক মাহিন ইসলাম তন্বীকে অর্থদণ্ড করা হয়েছে। ফ্ল্যাটকে গোডাউন বানিয়ে সুনির্দিষ্ট তাপমাত্রায় কসমেটিকস পণ্য না রাখারও অভিযোগ করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *